What is kinemaster ? How to do video editing professionally with Android mobile apps 2022

kinemaster

How to do video editing professionally with Android mobile apps 2022.
কিভাবে অ্যান্ড্রোয়েড মোবাইল দিয়ে প্রফেশনাল ভাবে ভিডিও ইডিটিং করবেন। বর্তমান সময়ে অনেক ইউটুবার বিভিন্ন অ্যাপস দিয়ে ভিডিও ইডিটিং করে থাকে। তবে আপনারা কি জানেন ভিডিও ইডিটের জন্য সবচেয়ে বেস্ট অ্যাপস কোনটি। অনলাইন জগতে সব চেয়ে ভালো অ্যাপ কাইন মাস্টার প্রাইম। যাতে রয়েছে অসংখ্য ফিচার, যা আমরা ফ্রিতে ব্যবহার করতে পারি। আজকে আমরা কাইনমাস্টার দিয়ে ভিডিও এডিট করা শিখবো।

আমরা যারা ইউটুবার রয়েছি তারা মোটামুটি জানি বা কাইনমাস্টর দিয়ে ভিডিও এডিট করি। তবে অনেকেই জানি না কিভাবে কাইনমাস্টার অ্যাপটিকে ব্যবহার করতে হয়। আমরা অনেকে কাইনমাস্টার অ্যাপে ভিডিও ইডিট করার পর যে ওয়াটার মার্ক আসে সেটা তুলতে পারি না। আবার অনেকে আছে কাইনমাস্টার ফ্রি ভার্সন ডাউনলোড করতে পারি না। আজ আমরা ধারা বাহিক ভাবে সব জানবো।

কাইনমাস্টর দিয়ে ভিডিও ইডিট :

বর্তমানে আমরা যারা অ্যান্ডোয়েড মোবাইল ব্যবহার করে ইউটিউবিং করি তাদের সবার প্রয়োজন কাইনমাস্টরের। কারন কাইনমাস্টার ছাড়া ভিডিও ইডিটিং তেমন ভালো হয় না। ফিলমোরা দিয়েও ভিডিও ইডিট করা যায়।

তবে কাইনমাস্টারের মতো হয় না। কারণ কাইনমাস্টারে অনেক ফ্রি ফিচার রয়েছে যা আমরা সহজেই ব্যবহার করতে পারি। আর বড় শুবিধা হলো অ্যান্ডোয়েড মোবাইলে ব্যবহার করা যায়।

প্রথমেই ফ্রিতে আপনাকে একটি কাইনমাস্টার অ্যাপ ইন্সটল করতে হবে। আপনারা কিন্তু প্লেস্টোরে এই ফ্রি অ্যাপটিকে পাবেন না। কারণ প্লেস্টোরে পেইড কাইনমাস্টার অ্যাপ পাবেন। যেটা শুধু টাকার বিনিময়ে ব্যবহার করতে পারবেন। তাও আবার টাইম লিমিট করা আছে। আর ফ্রিতে আপনি ব্যবহার করতে চাইলে কমেন্ট করুন অ্যাপটির লিংক দিবো। সে খান থেকে ডাউন লোড করে অপেন করবেন।

ওপেন করার পর কয়েকটি ফিচার আসবে সেগুলো সাইটে স্কডল করে গেট স্টারড এ ক্লিক করতে হবে। তাহলে ইডিট করার পেজটি চলে আসবে। তারপর তিনটি ফিচার আসবে সেখান থেকে আপনাকে মাঝের ফিচার এ ক্লিক করে আপনার তৈরি করা ভিডিওটি সিলেক্ট করুন। তারপর অকে অপশনে ক্লিক করুন।

অকে তে ক্লিক করার পর দেখবেন ইডিটের জন্য রেডি হয়েছে আপনার ভিডিও। এবার সরাসরি ভিডিওটির উপর ক্লিক করুন। এবার লেখালেখি করার পালা প্রতিটা ভিডিও এডিট করতে গেলে সব ধরনের ফিচার অ্যাড করতে হবে। লেখা লেখির জন্য বিভিন্ন ধরন রয়েছে। সিনেমার ছবিতে যেমন লাফিয়ে লাফিয়ে নাম আসে তেমন করার জন্য ৪ টা অপশন পাবেন। মিডিয়া,লেয়ার ভয়েচ,অডিও তার মধ্যে আপনাকে লেয়ার অপশনটি সিলেক্ট করতে হবে।

তারপর T text অপশনে ক্লিক করে আপনার যা লেখার প্রয়োজন তা লিখুন। লিখার পর অকেতে ক্লিক করুন। এবার আপনার ইচ্ছা মতো লেখার সাইজ করে নিন। দেখতে পারবেন তীর মার্ক আইকন আছে সেটা ধরে টানা টানি করলে লেখা ছোট বড় হতে থাকবে।

এবার লেখাটিকে টানা টানি বা লাফা লাফি করার জন্য সাইটে দেখতে পারবেন in animation এখানে ক্লিক করুন।দেখবেন তার নিচে অনেক ফিচার আছে সব গুলোতে ক্লিক করে আপনার যে টা পছন্দ হবে সেটা সেট করবেন।

কালার

এবারর লেখাটিকে একটু আকর্ষনীয় করার জন্য কালার ব্যবহার করতে হবে।আবার নিচে দেখতে পারবেন হলুদ একটি আইকন আছে যে লেখাটি এখন সেট করলেন সেটার উপর চাপ দিন। তারপর দেখবেন আবার আগের সেই ফিচার এসেছে সেখানে কালারের ০ আইকনে ক্লিক করুন। দেখবেন বিভিন্ন কালার রয়েছে যেকোনো একটি সেট করুন।

কাটিং

আপনার তৈরিকৃত ভিডিওর প্রথম মধ্য কিংবা শেষে কেটে ফেলতে চান তাহলে নিচে ছবির মতো দেখতে লাগে সেখানে ক্লিক করুন। ক্লিক করার পর দেখবেন আগের সেই অপশন চলে আসবে সেখানে কাচি, কেচি বা কাটার দেখতে পাবেন সেখানে ক্লিক করে যে সাইটে কাটতে চান সেখানটা সিলেক্ট করুন দেখবেন কেটে গেছে।

কাইনমাস্টার দিয়ে ভিডিওতে চলমান লেখা সেট করুন :

আপনারা কি kinemaster paid হয়েছে।এখন ফ্রিতে kinemaster Google playstore এ পাওয়া যায় না। আগে যাদের কাছে আছে তারা আপডেট দিবেন না।আপডেট দিলে ইডিট করা ভিডিওতে

Leave a Comment